Search
Close this search box.

ভিডিও কনফারেন্স ম্যানার্স

করোনার প্রকোপ বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে জীবন পালটে গেছে অনেকটাই।

রোজ সকালে ছুটতে ছুটতে অফিস যাওয়ার পাট নেই, বরং অফিসটাই উঠে এসেছে ঘরের মধ্যে।

সময়মতো ল্যাপটপ খুলে বসে পড়লেই হলো!

সারাদিনের যাবতীয় কাজ থেকে শুরু করে অফিসের মিটিং, ওয়েব কনফারেন্স, সবই চলছে বাড়িতে বসেই।

সমস্যা হলো, বাড়ির বাইরে বেরোতে হচ্ছে না বলে অনেকেই মুডটাও ঠিক অফিশিয়াল করে উঠতে পারছেন না।

বাড়ির পোশাকেই অফিসের কাজ করছেন, এমনকী যেমন তেমনভাবে বসে পড়ছেন ভিডিও মিটিংয়ে।

বাড়ির পাজামায় ভিডিও মিটিংয়ে বসা যেমন পেশাদারিত্বের পরিচয় নয়, তেমনি খেয়াল রাখতে হবে ম্যানার্সের দিকেও।

নিশ্চয়ই ভাবছেন, বাড়িতে বসে কাজ হচ্ছে যখন, এতকিছু করে লাভ কী!

এমনিতে বাড়ির পোশাকে অফিসের কাজ করলে তেমন ক্ষতি নেই, কিন্তু ভিডিও মিটিংয়ের সময় বাড়তি সতর্ক আপনাকে হতেই হবে।

বাড়ির রংচটা জামা বা ম্যাক্সি যত আরামদায়কই হোক, ভিডিও মিটিংয়ের সময়টায় অন্তত একটু ধোপদুরস্ত পোশাকে বদলে নিন নিজেকে।

সালোয়ার কুর্তা, স্কার্ট-টপ পরে বসতে পারেন। মোটামুটি আপনি যে ধরনের পোশাকে অফিস যান, সেই ধারাটা ধরে রাখলেই যথেষ্ট।

অফিসের ভিডিও মিটিংয়ে বসার আগে নিজেকে একটু ফিটফাট করে নিন।

মুখে মেকআপ করার দরকার নেই। শুধু চুলটা আঁচড়ে নিন ভালো করে।

\ময়শ্চারাইজার মেখে নিন। এ তো গেলো পোশাক আর মেকআপের কথা।

এমন জায়গায় বসে ভিডিও মিটিং করুন, যেখানে বাড়ির লোকজন আসবেন না। আগে থেকে তাদের বলে দিন।

জায়গাটায় যেন যথেষ্ট আলো থাকে।

বিশেষ খেয়াল রাখুন ব্যাকগ্রাউন্ডের দিকে

অনেকেরই বাড়িতে জিনিসপত্র এলোমেলো থাকে, অগোছালো হয়ে থাকে।

আপনার ব্যাকগ্রাউন্ডটা একটু গুছিয়ে নিতে ভুলবেন না।

অপ্রয়োজনীয় আজেবাজে জিনিস সরিয়ে দিন ব্যাকগ্রাউন্ড থেকে।

ভিডিও মিটিংয়ে কানেক্টিভিটির সমস্যা হতে পারে, আরও নানা যান্ত্রিক সমস্যা হতে পারে।

একেবারে শেষ মুহূর্তে লগইন করলে সামাল দিতে পারবেন না।

মিটিং শুরুর অন্তত আধঘণ্টা আগে লগইন করে অপেক্ষা করুন।

ভিডিও মিটিংয়ে বসে দাঁতে নখ কাটবেন না, গা এলিয়ে বসে থাকবেন না।

অফিসে মিটিং থাকলে যেভাবে আচরণ করেন, তেমনই থাকুন।

খুব প্রয়োজন না পড়লে চেয়ার ছেড়ে উঠে যাওয়াও ঠিক নয়।

মিটিংয়ের মাঝখানে কিছু খাবেন না, দেখতে খুব খারাপ লাগে।

কম্পিউটারের ক্যামেরা আর মাইক্রোফোন ঠিকমতো কাজ করছে কিনা সেটাও আগে থেকে দেখে নিতে হবে।

হাতের কাছে জলের বোতল বা গ্লাস রাখুন। নোটবই আর কলম নিয়ে বসুন।

আর হ্যাঁ, মোবাইল ফোন অবশ্যই সাইলেন্ট রাখবেন এ ক্ষেত্রেও।